*করোনা ভ্যাক্সিন জালিয়াতির শিকার খোদ মিমি চক্রবর্তী*

*করোনা ভ্যাক্সিন জালিয়াতির শিকার খোদ মিমি চক্রবর্তী*

ঋদ্ধি চৌধুরী,

করোনার টিকা নিয়ে দুর্নীতির অন্ত নেই। আর এবার কলকাতা পুরসভার নাম ভাঙিয়ে ভুয়ো টিকাকরণ শিবির চলল কসবা থানা এলাকায়।
শুধু তাই নয়, কসবার এই ভুয়ো ক্যাম্প থেকে টিকা নিয়েছেন খোদ অভিনেত্রী তথা সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। সূত্রের খবর, জয়েন্ট কমিশনারের ভুয়ো পরিচয়পত্র সহ গ্রেপ্তার হয়েছেন নিজেকে আইএএস বলে পরিচয় দেওয়া দেবাঞ্জন দেব নামের এক ব্যক্তি। দেবাঞ্জন নীলবাতি লাগানো গাড়িতে চড়তেন, সঙ্গে রাখতেন বেশ কয়েকজন নিরাপত্তারক্ষী। কসবার ১০৭ নম্বর ওয়ার্ডের ভুয়ো ক্যাম্পে দেবাঞ্জন দেবের অধীনে টিকাকরণ হয় সাংসদ মিমি চক্রবর্তীর।
মঙ্গলবার দেবাঞ্জনকে গ্রেফতারের আগে পর্যন্ত এই ক্যাম্প থেকে টিকা নেন ২৫০ জন। জানা যায়, অনুমতি ছাড়াই চলছিল এই ক্যাম্প।
দেবাঞ্জনকে গ্রেপ্তার করা হলে তাঁর থেকে উদ্ধার হয় জাল আই কার্ড। এমনকি তাতে কলকাতা পুর কমিশনার বিনোদ কুমারের সই জাল করা হয়েছে বলেও অভিযোগ। তাছাড়া যে নীল বাতি যুক্ত গাড়ি চড়ে ঘুরতেন দেবাঞ্জন দেব তা কোথা থেকে এল? কোথা থেকে এল এত টিকা? কীভাবেই বা পুরসভার লোগো ব্যবহার করা হল? আদৌ কি আসল টিকা? এই ক্যাম্পের উদ্যোক্তা কারা? উঠছে একাধিক প্রশ্ন। গোটা বিষয় খতিয়ে দেখছেন পুলিশ কর্তৃপক্ষ।

क्राइम बड़ी खबर वायरल न्यूज़